সময় আমরা এবং কিছু বিক্ষিপ্ত চিন্তা

কালের যাত্রাধ্বনি শুনিতে কি পাও?
তারি রথ নিত্যই উধাও।
সময় এবং স্রোত কারো জন্য অপেক্ষা করে না। বাইবেল বলে: “সুযোগ কিনিয়া লও, কারণ একাল মন্দ” ইফিষীয় ৫:১৬পদ।

  • সময় কি? দার্শনিকদের কাছে সময় একটি উৎকট সমস্যা। কিন্তু বাইবেল সময়ের ভিন্নতর অর্থ দিয়েছে। দার্শনিকদের বিপরীতে, যারা সময়কে একটা সমস্যা হিসেবে দেখে; বাইবেল সময়কে এমন একটি বিষয় হিসেবে দেখে, যা ঈশ্বর সৃষ্টি করেছেন মানুষের মুক্তির পরিকল্পনা কার্য্যকর করার জন্য। সময়, সদাপ্রভু, ইতিহাস একই সুত্রে বাঁধা। সময় হচ্ছে ইতিহাস এবং এখন ইতিহাস হচ্ছে পরিত্রানের ইতিহাস Instead of viewing abstractly as a problem, It regards time as a Created Sphere in which God’s redemptive plam is actualized Evangelical (Dictionary of theology)। অর্থাৎ পরিত্রানের সময়।
  • এখন সময় গুরুত্বপূর্ণ কারণ-এই সময় সদাপ্রভু নিরুপণ করেছেন মুক্তির ইতিহাস হিসেবে।
  • একজনের আয়ু এবং সময়ঃ একজন মানুষ সম্পর্কে বলা হয়েছে যে, ৭০ বছর জীবিত থাকে সে মূরতঃ কত বছর কি করে কাঁটায়- ২০ বছর ঘুমিয়ে, ২০ বছর কাজ করে, ৬ বছর খেয়ে, ৫ বছর পোষাক পরে, ১ বছর টেলিফোন করে, ২.৫ বছর ধুমপান করে, ২.৫ বছর বিছানায় গড়াগড়ি করে, ৩ বছর কারো জন্য অপেক্ষা করে, ৫ মাস জুতার ফিতা লাগিয়ে, ২.৫ বছর অন্যান্য কাজ করে, এর মধ্যে মাত্র ১.৫ বছর চার্চে উপস্থিত থাকে যখন তার ৭ বছর চার্চে উপস্থিত থাকা উচিৎ।
  • জীবন এবং সময় নিয়ে একটি কবিতা আছে। তিন খন্ডে বিভক্ত (এই জীবন):
    জীবন হচ্ছে তিন খন্ডে বিভক্ত একটি পুস্তক,
    প্রথম খন্ড হচ্ছে, অতীতের কাহিনী;
    দ্বিতীয় খন্ড, এখন আমরা লিখছি প্রতিদিন
    তৃতীয় খন্ড, আমাদের দৃষ্টির বাইবরে তালাবদ্ধ আছে।
    সদাপ্রভুর হাতে রয়েছে চাবি।

আমাদের বর্তমান জীবন যাপন এবং আচার ব্যবহার চালচলন নির্মাণ করছে তৃতীয় খন্ডটি। যদি সতর্ক না হন তবে অবধারিত বিপদ। সময়ের সদ্ব্যাবহারকারী কিছু বিখ্যাত ব্যক্তিঃ

  • মহান প্রভু যীশু খ্রীষ্টঃ ইহার পরেই তিনি ঘোষনা করিতে করিতে এবং ঈশ্বরের রাজ্যের সুসমাচার প্রচার করিতে করিতে নগরে নগরে ও গ্রামে গ্রামে ভ্রমন করিলেন। লূক ৮:১ পদ।
  • সাধু পৌলঃ তিরিশ বছর সময়ের মধ্যে সমস্ত অবাধ পৃথিবীতে মন্ডলী স্থাপন করে। ‘তোমরা জান, এশিয়া দেশে আসিয়া, আমি তিন বৎসরকাল রাত দিন প্রত্যেক জনকে অশ্রুপাতের সহিত চেতনা দিতে ক্ষান্ত হই নাই (প্রেরিত ২০:৩১ পদ)।
  • আইজ্যাক নিউটনঃ মাত্র ২৪ বছর বয়সে তাঁর বিখ্যাত Law of Gravity, আবিষ্কার করেন। তিনি ছয় ঘন্টা বাইবেল পড়তেন।
  • কবি টেনিসনঃ তার প্রথম ভলিউম লিখেন ১৮ বছর বয়সে।
  • Joan of Arch ১৯ বৎসর বয়সে মাতৃভূমির জন্য জীবন বিসর্জন করেন।
  • বিখ্যাত ইংরেজ সাহিত্যিক Macanly এক সমুদ্র যাত্রায় জার্মান ভাষা শিখে ফেলেন।
  • মিঃ ফুলটন বাষ্প চালিত জাহাজ এবং টেলিগ্রাফের মোর্স আবিষ্কার করেন কাজের ফাঁকে সময় দিয়ে।
  • জন ওয়েজলীঃ তার সমস্ত জীবনকালে চল্লিশ হাজার সারমণ লিখেন। তিনশ হাজার মাইল ভ্রমন করেন। এর অর্থ তিনি জীবকালে ১৫ বার সমস্ত পৃথিবী ঘুরে আসে।
  • বেঞ্জামীন ফ্রাঙ্কলীনঃ বেঞ্জামীন ফ্রাঙ্কলীন সম্পর্কে বলা হয়েছে যে তিনি সময়ের উপযুক্ত ব্যবহারের মাধ্যমে আকাশ থেকে বিদ্যুৎ ছিনিয়ে এনেছিলেন এবং রাজা জর্জ তৃতীয়ের কাছ থেকে মুকুট।
  • আলভা এডিসন বিজ্ঞানীঃ যখন অন্যান্য যুবকরা সময় কাটানোর জন্য সিনেমায় অথবা খাঁচ গৃহে যেতো, তিনি লাইব্রেরীতে যেতেন। বইয়ের পর বই পড়ে সময় কাঁটিয়ে দিতেন। ফলে তিনি হলেন বিশ্ব জোড়া বিখ্যাত বিজ্ঞানী।

সময়ের বাড়তি সদ্ধ্যবহারের মাধ্যমে নিজের পেশার বাইরের বিখ্যাত আবিষ্কারক হবেন কারাঃ

  • একজন সামরিক বাহিনীর মানুষ সময়ের উপযুক্ত ব্যবহারের মাধ্যমে তার পেশার বিপরীতে Father of Photography হিসেবে পরিচিত হলেন।
  • একজন বই বাধাবো কাজের লোক হলেন Electrical Motor এর জনক। Telegraph এর জনক হলেন একজন চিত্রকর। একজন কৃষক হলে Type Writer machine এর আবিষ্কারক।
  • কটন জিন কাপড় আবিষ্কার করলেন একজন কাঠমিস্ত্রী। একজন স্কুল শিক্ষক টেলিফোন আবিষ্কার করলেন। আপনি কিভাবে সময়ের উপযুক্ত ব্যবহার করেন? বাইবেল বলছেঃ সুযোগ কিনিয়া লও”।
  • আপনি কি সময়ের সদ্ব্যবহার করছেন? সময় নষ্ট করবেন নাঃ জন ষ্টট একবার IVCF এ লেকচার দিচ্ছিলেন। ছাত্ররা বার বার হাততালি দিচ্ছিল। জন ষ্টট হঠাৎ বলে উঠলেন, Please don’t clap anymore; you are wasting my time; I have only got two minutes more. অর্থাৎ “দয়া করে হাততালি দেবেন না। আপনারা আমার সময় নল্ট করছেন। আমার মাত্র দু মিনিট আছে”।

সতর্ক বাণীঃ
বেঞ্জামীন ফ্রাঙ্কলিনঃ তুমি কি জীবন ভালোবাসো, তাহলে সময়ের অপব্যবহার কোরো না। কারণ সময়ের সদ্ব্যবহারই জীবনকে গড়ে তোলে। গতকাল হচ্ছে একটি বাতিল চেক আগামীকাল অর্থ পাবার প্রতিশ্রুতি, কেবল আজই হচ্ছে ক্যাশ টাকার দিন একে বুদ্ধি পূর্বক ব্যয় কর। বাইবেল বলছে; সময়ের সদ্ব্যবহার কর, সুযোগ কিনিয়া লও”। আপনি নেবেন কি?
২০১১ খ্রীষ্টাব্দে আপনি কি সময় সম্পর্কে সচেতন হবেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

নতুন লেখা

ঈশ্বর আপনার সঙ্গে চলছেন

https://www.youtube.com/watch?v=GhqCxrHrYvs আমরা এই সময়ে করোনার আতঙ্কের মধ্য দিয়ে যাচ্ছি। একই সঙ্গে আমরা বাংলাদেশে ভয়াবহ আম্পান ঝড়ের মোকাবেলা করলাম। করোনার এই...

গান বই -এর এন্ড্রয়েড এ্যাপ

গীর্জায় বা যে কোন ধর্মীয় সভায় বাইবেলের পাশাপাশি গান বই -এর কোন বিকল্প নেই। বর্তমান প্রজন্মে প্রায় সবার ফোনেই...

জেলখানা ও ভেঙে যাওয়া জাহাজ (পৌল)

পৌল যিরূশালেমে এসেছেন বেশী দিন হয় নি, কিন্তু এরই মধ্যে পৌলকে নিয়ে আরেকটি হুলস্থুল শুরু হয়ে যায়। যিহূদীরা ভেবেছিল...

পৌলের প্রচার যাত্রা

সিরিয়া দেশের আন্তিয়খিয়া শহরে অনেক লোক যীশু খ্রীষ্টকে বিশ্বাস করে খ্রীষ্টিয়ান হচ্ছিল। তাই সেখানে যীশুর বিষয় শিক্ষা দেবার জন্য...

পিতর ও কর্ণীলিয়

এদিকে পুরোহিতদের অত্যাচারে যারা বিভিন্ন জায়গায় ছড়িয়ে পড়েছিল পিতর তাদের কাছে গিয়ে দেখাশুনা করতে লাগলেন। তিনি যখন যীশুর বিষয়ে...

আপনার ভাল লাগতে পারেএকই লেখা
আপনার জন্য লেখা