জনসংখ্যা – বিবর্তনকে অস্বীকার করে

২০১৭ সালের এপ্রিলে পৃথিবীর জনসংখ্যা ৭.৫ বিলিয়ন ছাড়িয়ে গেছে। ১৯৮৫তে জনসংখ্যা ছিলো ৫ বিলিয়ন। ১৮০০ সালে জনসংখ্যা ছিল প্রায় ১ বিলিয়ন। যীশু খ্রীষ্টের জন্মের সময় সেই সংখ্যা ছিলো মাত্র ১/৪ বিলিয়ন, অর্থাৎ প্রায় ২৫০ মিলিয়ন।

বাইবেল অনুযায়ী প্রায় ৬০০০ বছর আগে ঈশ্বর সব কিছু সৃষ্টি করেছেন (পৃথিবীর বয়স কত)। প্রায় ৪,৪০০ বছর আগে সারা পৃথিবীব্যাপি জলপ্লাবণে সবাই মারা যায়, শুধু মাত্র ৮ জন ব্যক্তি নোহের জাহাজে বেঁচে থাকে। উপরের জনসংখ্যার উর্ধ্বর্গতি তাই প্রমাণ করে।

যদি বিবর্তনবাদ সত্য হতো, তাহলে ঘটনাটা হতো সম্পূর্ণ ভিন্ন। বিবর্তনবাদিরা বিশ্বাস করে ফসিল (জীবাশ্ম) রেকর্ড প্রমাণ করে পৃথিবীর বয়স কোটি কোটি বছর। কিন্তু বাইবেল বলে এই সব ফসিল নোহের জলপ্লাবণের ফল। ৪,৪০০ বছর আগের জলপ্লাবণে প্রায় সব পশু-পাখি এবং মানুষ মারা যায় এবং মাটির নিচে চাপা পড়ে ফসিলে রূপান্তরিত হয়।

বিবর্তনবাদিরা এই জলপ্লাবণে বিশ্বাস করে না, কারণ তারা বাইবেল বিশ্বাস করে না। বরং তারা বিশ্বাস করে ২ হাজার কোটি বছর আগে বিগ ব্যাং-এর মাধ্যমে পৃথিবী সৃষ্টি হয়। ২৮ কোটি বছর আগে বিবর্তনের মাধ্যমে মানুষ সৃষ্টি হয়। কিন্তু যদি তাই হয় এবং জনসংখ্যা বৃদ্ধির গতি যদি সর্বনিম্নও ধরা হয়, যেমন ১ লক্ষ বছরে দিগুন হয়। তাহলেও বর্তমান জনসংখ্যা প্রকাণ্ড আকার ধারণ করবে। সংখ্যাটা দাড়ায় ১ এর পেছনে ১০০টা শূন্য। অর্থাৎঃ

১০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০,০০০।

বাংলায় এটাকে কিভাবে বলে জানি না। তবে এক সময় ইংরেজীতে এটাকেই বলা হত “গুগল”।

এইসব সূত্রই প্রমাণ করে বাইবেলের দেয়া সৃষ্টির ইতিহাস ১০০ ভাগ সত্য। ঈশ্বর ৬০০০ বছর আগে সমস্ত কিছু সৃষ্টি করেছেন। ৪,৪০০ বছর আগে বিশ্বব্যাপি জলপ্লাবণে ৮ জন ছাড়া বাকি সবাই মারা যায়।

এমন হাজারও সূত্র সারা পৃথিবীতে ছড়িয়ে আছে। যা ঈশ্বরের দেয়া বাইবেলের সৃষ্টির ইতিহাসকে সত্য প্রমাণ করে। কিছু বিবর্ততবাদির বিশ্বাসকে চোখ বন্ধ করে স্বীকৃতি না দিয়ে এই সব বিষয় বিশ্লেষন করলে নিজেই এই প্রমাণ বের করা সম্ভব।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

নতুন লেখা

ঈশ্বর আপনার সঙ্গে চলছেন

https://www.youtube.com/watch?v=GhqCxrHrYvs আমরা এই সময়ে করোনার আতঙ্কের মধ্য দিয়ে যাচ্ছি। একই সঙ্গে আমরা বাংলাদেশে ভয়াবহ আম্পান ঝড়ের মোকাবেলা করলাম। করোনার এই...

গান বই -এর এন্ড্রয়েড এ্যাপ

গীর্জায় বা যে কোন ধর্মীয় সভায় বাইবেলের পাশাপাশি গান বই -এর কোন বিকল্প নেই। বর্তমান প্রজন্মে প্রায় সবার ফোনেই...

জেলখানা ও ভেঙে যাওয়া জাহাজ (পৌল)

পৌল যিরূশালেমে এসেছেন বেশী দিন হয় নি, কিন্তু এরই মধ্যে পৌলকে নিয়ে আরেকটি হুলস্থুল শুরু হয়ে যায়। যিহূদীরা ভেবেছিল...

পৌলের প্রচার যাত্রা

সিরিয়া দেশের আন্তিয়খিয়া শহরে অনেক লোক যীশু খ্রীষ্টকে বিশ্বাস করে খ্রীষ্টিয়ান হচ্ছিল। তাই সেখানে যীশুর বিষয় শিক্ষা দেবার জন্য...

পিতর ও কর্ণীলিয়

এদিকে পুরোহিতদের অত্যাচারে যারা বিভিন্ন জায়গায় ছড়িয়ে পড়েছিল পিতর তাদের কাছে গিয়ে দেখাশুনা করতে লাগলেন। তিনি যখন যীশুর বিষয়ে...

আপনার ভাল লাগতে পারেএকই লেখা
আপনার জন্য লেখা